প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার চকরিয়া-পেকুয়ার বন্যাদুর্গত জনপদে ক্ষয়ক্ষতি লাগবে উদ্যোগ নেবে

প্রকাশ: ২০ জুলাই, ২০১৯ ১০:২৭ : পূর্বাহ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক,চকরিয়া
চকরিয়া উপজেলার হারবাং ইউনিয়নে বন্যাদুর্গত পাঁচশত দরিদ্র মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেছেন চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম। গতকাল শুক্রবার সকালে তিনি হারবাং ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বন্যাদুর্গত পরিবারের নারী-পুরুষের হাতে ত্রাণ সামগ্রী তুলে দেন।
বিতরণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন হারবাং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মিরানুল ইসলাম মিরান, পরিষদের মেম্বার মোহাম্মদ ইলিয়াছ, মেম্বার হারুনর রশিদ, মেম্বার মজনুম মেম্বার নাহার, মেম্বার আমেনা বেগম, মেম্বার কামাল উদ্দিন, সচিব সালাহউদ্দিন প্রমুখ। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মী এবং সুধীজন।
বিতরণ অনুষ্ঠানে এমপি জাফর আলম বলেছেন, সম্প্রতি সময়ের বন্যায় চকরিয়া উপজেলার দুর্গত মানুষের জন্য সরকার ২’শ মেট্রি টন চাল ও ৩ হাজার প্যাকেট শুকনো খাবার এবং পেকুয়ায় পানিবন্দি ২০ হাজার পরিবারের জন্য ১’শ মেট্রিকটন চাল ও ১ হাজার প্যাকেট শুকনো খাবার বরাদ্দ দিয়েছেন। বন্যা কবলিত কেউ যাতে না খেয়ে না থাকে সেই জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছেন। পাশাপাশি সহসা দুর্গত এলাকার ক্ষতি লাগবে প্রশাসনের কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়েছেন সরকার প্রধান।
তিনি বলেন, চকরিয়াবাসির দীর্ঘদিনের দাবি মাতামুহুরী ও শাখাখাল খনন। এই দাবি বাস্তবায়ন করতে ইতিমধ্যে অর্থবরাদ্দ দিয়েছেন সরকার। প্রয়োজনে আরো বরাদ্দ হবে। চকরিয়া-পেকুয়ার বানবাসি মানুষ অভাবি নয়। তারা ত্রাণ চাইনা, তাদের দাবি ঢলে ভাঙ্গা রাস্তা-ঘাট ও বাঁধ নির্মাণ করা। সেই দাবি পুরণ করতে রাস্তা ও বেড়িবাঁধ নির্মাণ মেরামত কাজ শুরু করা হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জনগনের দুর্ভোগ লাগবে চকরিয়া-পেকুয়া উপজেলার বন্যাদুর্গত জনপদের মানুষের ক্ষয়ক্ষতি লাগবে উদ্যোগ নেবেন। #